চট্টগ্রামে নারীকে বাঁচাতে গিয়ে দুই সেনাসদস্য আহত

  • ২৯-Aug-২০১৯ ১০:৫৯ পূর্বাহ্ণ
Ads

ফাইল ছবি 

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

চট্টগ্রামে দুর্ঘটনার আশঙ্কা করে সেনা সদস্যরা দুই নারীকে সরিয়ে দিতে উদ্যোগ নেন। এ সময় স্কেবেটরের আঘাতে একটি বাড়ির দেওয়াল কর্তব্যরত সেনা সদস্যদের ওপর পড়ে। এ ঘটনায় ওই দুই নারী বেঁচে গেলও দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হন দুই সেনাসদস্য। তাদের চট্টগ্রামের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ভর্তি করা হয়েছে।

বুধবার (২৮ আগস্ট) দুপুরে নগরের টেকপাড়া খাল থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান চলাকালে এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

দুর্ঘটনায় আহতরা হলেন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সদস্য সৈনিক সুজন (৩২) ও সৈনিক শামীম (৩৫)।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উচ্ছেদ অভিযানের নেতৃত্বে থাকা সেনা কর্মকর্তা রিজওয়ান।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বুধবার সকাল ১০টার দিকে নগরের টেকপাড়া খাল দখল করে গড়ে উঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ শুরু করে চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (চউক) ও প্রকল্পের বাস্তবায়নকারী সংস্থা বাংলাদেশ সেনাবাহিনী। দুপুর ১২টার দিকে একটি বাড়ির বাসিন্দাদের বারবার সরে যেতে অনুরোধ করা হলেও দুই নারী ওই বাড়ি থেকে কোনোভাবেই বের হচ্ছিলেন না।

এ সময় উচ্ছেদ অভিযান চলতে থাকায় দুর্ঘটনার আশঙ্কা করে সেনা সদস্যরা তাদের সরিয়ে দিতে উদ্যোগ নেন। এ সময় স্কেবেটরের আঘাতে ওই বাড়ির একটি দেওয়াল কর্তব্যরত সেনা সদস্যদের ওপর পড়ে। এ ঘটনায় ওই দুই নারী বেঁচে গেলও গুরুতর আহত হন সৈনিক সুজন ও সৈনিক শামীম।

কর্মরত সেনা কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে জানা গেছে, ওই দুই সেনাসদস্য প্রাণে বেঁচে গেলেও তাদের সুস্থ হতে বেশ কিছু দিন সময় লাগতে পারে।

উচ্ছেদ অভিযান শুরুর পর স্থানীয়দের পক্ষ থেকে দায়িত্বরত সেনাসদস্য ও সিডিএ কর্মকর্তাদের বাধা দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ কারণে দুপুরের দিকে বেশ কিছুক্ষণ উচ্ছেদ অভিযান বন্ধ ছিল।

চউকের উপ-সহকারী প্রকল্প পরিচালক হামিদুল ইসলাম বলেন, অভিযান শুরুর পর দুপুরের দিকে কিছু যুবক ও স্থানীয়রা উচ্ছেদ অভিযানে বাধা দেয়ার চেষ্টা করেছিল। তবে সেনাবাহিনীর সদস্যরা বিষয়টি শান্তভাবে মোকাবিলা করেন।

চউকের স্পেশাল মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সাইফুল আলম চৌধুরী বলেন, আজকের উচ্ছেদ অভিযানে ১১টি বড় পাকা দালান, ২৫টি সেমিপাকা ও ৩টি কাঁচা ঘর উচ্ছেদ করা হয়েছে।

উচ্ছেদ অভিযানে উপস্থিত ফিরিঙ্গিবাজার ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাসান মুরাদ বিপ্লব বলেন, জলবদ্ধতা নিরসনে অবৈধ খাল দখলকারীদের উচ্ছেদ সরকারের গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প। এ প্রকল্প বাস্তবায়নে যা করা প্রয়োজন তা সরকার করবে। অনেক আগে থেকেই অবৈধভাবে বসবাসকারীদের উচ্ছেদে নোটিশ দেয়া হলেও তারা সরে যাননি।

 

/কে 

 

Ads
Ads