শনিবার ২ মার্চ ২০২৪ ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০

শিরোনাম: বেইলি রোডের অগ্নিকাণ্ডে সংবাদকর্মীর মৃত্যু    স্মরণকালের শ্রেষ্ঠ দাবানলে জ্বলছে টেক্সাস    ছাত্রদলেরে নয়া কমিটি ঘোষণা    বেইলী রোডে অগ্নিকান্ডে নিহতদের মধ্যে যাদের পরিচয় পাওয়া গেছে     নতুন মন্ত্রিসভায় ডাক পেলেন যারা    বেইলি রোডের আগুনে দগ্ধদের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী    বেইলি রোডে আগুন: মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪৫ জন   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
মুন্সিগঞ্জ পৌরসভা উপ নির্বাচন: ফাহরিয়া আফরিনকে মেয়র হিসাবে দেখতে চান পৌরবাসী
বিশেষ প্রতিনিধি
প্রকাশ: শুক্রবার, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ৮:১৭ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

মুন্সিগঞ্জ পৌরসভার মেয়র পদে উপ-নির্বাচন ঘিরে তৎপর সম্ভাব্য প্রার্থীরা। তবে সেখানে কয়েকজন প্রার্থী থাকলেও সাবেক মেয়র ও বর্তমান মুন্সিগঞ্জ -৩ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লবের সহধর্মিণী চৌধুরী ফাহরিয়া আফরিনকেই মেয়র হিসাবে দেখতে চান পৌরবাসী। এলাকার উন্নয়নধারাকে অব্যহত রাখতে এবং সাধারণ ভোটারদের মধ্যে পরিচ্ছন্ন ও সদালাপী মনোভাবের কারণে আফরিনকেই বেছে নেয়ার কথা জানিয়েছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সাধারণ ভোটাররা। ইতোমধ্যেই প্রার্থীদের সমর্থকরাও ফেসবুকে প্রচার-প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা হওয়ার পরপরই কে হচ্ছেন প্রার্থী- এ নিয়ে পৌরসভার ভোটারদের মধ্যেও আগ্রহ দেখা দিয়েছে। 



আগামী ০৯ মার্চ মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র পদে উপ-নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। মনোনয়নপত্র দাখিলের দিন নির্ধারণ করা হয়েছে ১৩ ফেব্রুয়ারি। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২২ ফেব্রুয়ারি এবং প্রতীক বরাদ্দ ২৩ ফেব্রুয়ারি। 

এ নির্বাচনে বরাবরের মতো বিএনপির কোনো প্রার্থী থাকছে না বা কারো নাম শোনা যাচ্ছে না। এই মুহুর্তে প্রার্থী তালিকায় রয়েছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের দুই প্রার্থী। চৌধুরী ফাহরিয়া আফরিন ইতিমধ্যেই মেয়র পদে প্রার্থীতা ঘোষণার পর এলাকার সাধারণ মানুষ থেকে বিশেষ করে নারী ভোটারদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। নারীরা বলছেন, ‘আফরিন আপা মেয়র হলে তার কাছে আগেও যেমন সব বিষয় নিয়ে কথা বলতে পারতাম, পরেও পারবো। তিনি আমাদের সাথেই সব সময় মিশে থাকেন। সংসদ নির্বাচনের সময় স্বামীর জন্য ভোট চাইতে এসে তিনি যেভাবে আমাদের আপন করে নিয়েছেন, তা সত্যিই অভাবনীয়।  এছাড়া নারীর ক্ষমতায়নের ক্ষেত্রেও চৌধুরী ফাহরিয়া আফরিন মেয়র নির্বাচিত হলে তার সুফল পাওয়া যাবে। 

ফাহরিয়া আফরিনের সমর্থকরা জানিয়েছেন, পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে তার রয়েছে ব্যাপক জনপ্রিয়তা। তার কথা এবং কাজ পৌরবাসীর মন জয় করবে ইনশাআল্লাহ। তাছাড়া রাজনৈতিক পরিবারের স্ত্রী, রাজনীতি তিনি অনেক আগেই শিখেছেন। এলাকার জনগন তার আপ্যায়নে অনেক খুশি। সাংসদের প্রয়াত মা ফজিলাতুন্নেছা বেগম যেমন কোনো নেতা-কর্মিকে বাসা থেকে না খেয়ে আসতে দেননি আফরিন ঠিক তার মায়ের মত নেতা-কর্মীর সাথে সুন্দর আচরন করেন, সবচেয়ে মজার ব্যাপার হলো- কোনো কর্মী সংসদের বাসায় গেলে আগে খাওয়া পরে কর্মীর কথা শুনেন। যদি সাংসদের স্ত্রী কর্মীর সমস্যা সমাধান করতে পারেন সাথে সাথে করে দেন। আর সমস্যা সমাধানে জটিলতা দেখা দিলে সাংসদের সহযোগিতা নিয়ে থাকেন। ফয়সাল বিপ্লব মুন্সীগঞ্জ পৌরসভাকে গুছিয়ে রেখেছেন আগে থেকেই।  তবে মুন্সীগঞ্জ পৌরসভাবাসী বিশ্বাস করে, সাংসদের স্ত্রীকে পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত করলে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত থাকবে এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত আরো শক্তিশালী হবে।

মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লব মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র ছিলেন। দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মহিউদ্দিনের বড় ছেলে মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লব মেয়র পদ থেকে পদত্যাগ করেন। এরপর পৌরসভার মেয়র পদটি শূন্য ঘোষণা করে স্থানীয় সরকার বিভাগ।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
http://www.dailyvorerpata.com/ad/Vorer-pata-23-12-23.gif
http://www.dailyvorerpata.com/ad/bb.jpg
http://www.dailyvorerpata.com/ad/Screenshot_1.jpg
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
সাউথ ওয়েস্টার্ন মিডিয়া গ্রুপ


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৪১০১০০৮৭, ৪১০১০০৮৬, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৪১০১০০৮৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৪১০১০০৮৫
অনলাইন ইমেইল: [email protected] বার্তা ইমেইল:[email protected] বিজ্ঞাপন ইমেইল:[email protected]