শনিবার ২ মার্চ ২০২৪ ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০

শিরোনাম: অভিশ্রুতি নাকি বৃষ্টি ? পরিচয় নিশ্চিত হওয়ার পর মিলবে লাশ     গাউসুল আজম মার্কেটে লাগা আগুন নিয়ন্ত্রণে    জাতীয় সংসদে অফশোর ব্যাংকিং বিল উত্থাপন    আমরা উন্নত চিকিৎসার জন্য একটা সুন্দর স্বাস্থ্য ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা করতে চাচ্ছি : স্বাস্থ্যমন্ত্রী    ক্রিকেটেই মনোযোগ দিতে চান গৌতম গম্ভীর     ডিসি সম্মেলনের মূল ইস্যুই হচ্ছে নির্বাচনী ইশতেহারের বাস্তবায়ন    পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে বাংলাদেশে এসেছে শ্রীলঙ্কা দল   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
নির্যাতিত মানুষের বিশ্বনেতা ছিলেন বঙ্গবন্ধু
#বঙ্গবন্ধু মানেই মুক্তিকামী মানুষের নেতা: বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আব্দুল মাবুদ। #বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ছেন শেখ হাসিনা: উৎপল দাস।
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: শনিবার, ১৮ মার্চ, ২০২৩, ১০:৩৯ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

মার্চ মাসের দুটি গুরুত্বপূর্ণ তারিখ পার করেছি আমরা। একটি ৭ মার্চ ও আরেকটি ১৭ মার্চ। যতদিন পৃথিবীর বুকে থাকবে বাঙালি অথবা বাংলাদেশের নাম, ততদিন অমর হয়ে থাকবেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালিকে কখনই ভুলে যাওয়া সম্ভব নয়। 

দৈনিক ভোরের পাতার নিয়মিত আয়োজন ভোরের পাতা সংলাপের ১০১০তম পর্বে এসব কথা বলেন আলোচকরা। ভোরের পাতা সম্পাদক ও প্রকাশক ড. কাজী এরতেজা হাসানের নির্দেশনা ও পরিকল্পনায় অনুষ্ঠানে আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন-সেক্টর কমান্ডার ফোরামের যুগ্ম মহাসচিব বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আব্দুল মাবুদ।  অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ভোরের পাতার বিশেষ প্রতিনিধি উৎপল দাস।

বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আব্দুল মাবুদ বলেন, মার্চ মাসের দুটি গুরুত্বপূর্ণ তারিখ পার করেছি আমরা। একটি ৭ মার্চ ও আরেকটি ১৭ মার্চ। যতদিন পৃথিবীর বুকে থাকবে বাঙালি অথবা বাংলাদেশের নাম, ততদিন অমর হয়ে থাকবেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালিকে কখনই ভুলে যাওয়া সম্ভব নয়। কারণ তার বলিষ্ঠ নেতৃত্বই বাঙালিকে দিয়েছে নিজেদের রাষ্ট্র। তিনি ছিলেন আমাদের স্বাধীনতার প্রেরণা ও প্রতীক। যার কণ্ঠে ছিল বজ্র শক্তি, চরিত্রে ছিলেন নির্মল, স্বচ্ছ ও প্রতিবাদী। অপার আত্মবিশ্বাসে অকপটে বলতেন অন্যায়ের বিরুদ্ধে, অত্যাচারিত, নিপীড়িত ও অধিকার বঞ্চিত মানুষদের পক্ষে। ভাষা আন্দোলনে, ’৫৪ নির্বাচনে, ’৬২ শিক্ষা আন্দোলনে, ’৬৬ ছয় দফায়, ’৬৯ গণ অভ্যুত্থানে, ’৭০ এর নির্বাচনে, ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণে ও ২৬ মার্চের প্রথম প্রহরে স্বাধীনতার ঘোষণায় একক কৃতিত্বের অধিকারী। বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ ছিল বাঙালির প্রেরণার চিরন্তন উৎস। বাঙালির বীরত্বপূর্ণ সংগ্রাম ও সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধে জাতির জনকের ওই ভাষণের দিক-নির্দেশনাই ছিল সে সময় বজ্র কঠিন জাতীয় ঐক্যের মূলমন্ত্র। অসীম ত্যাগের বিনিময়ে অর্জিত বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের অমিত শক্তির উৎস ছিল এই ঐতিহাসিক ভাষণ। বাংলাদেশের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান যে সারাবিশ্বের বন্ধু তা আজ জাতিসংঘ কর্তৃক স্বীকৃত।

উৎপল দাস বলেন, বঙ্গবন্ধু সারাজীবন এদেশের মাটি ও মানুষের অধিকার আদায়ে সংগ্রাম করেছেন। বাঙালি জাতির মুক্তির জন্য জীবনের ১৪ বছর পাকিস্তানের কারাগারে বন্দি থেকেছেন। মার্চ মাস আমাদের গর্জে উঠার মাস, মার্চ মাস আমাদের স্বাধীনতার মাস। বাংলার আন্দোলন-সংগ্রামের ঘটনাবহুল ও বেদনাবিধুর স্মৃতি বিজড়িত ১৯৭১-এর এই মার্চ মাসেই জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে শুরু হয় অসহযোগ আন্দোলন। ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ স্বাধীনতার ঘোষণা হলেও চূড়ান্ত আন্দোলনের সূচনা হয়েছিল একাত্তরের ১ মার্চ থেকেই। একসময় পৃথিবীর অনেক দেশ বাংলাদেশকে হতদরিদ্র বলে আখ্যায়িত করত। এখন এই দেশটিই উন্নয়নের চূড়ান্ত শিখরে পৌঁছে যাচ্ছে। আমরা আশা করছি ২০৪১ সালের আগেই আমরা বঙ্গবন্ধুর সেই কাঙ্ক্ষিত সোনার বাংলা দেখতে পাবো জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
http://www.dailyvorerpata.com/ad/Vorer-pata-23-12-23.gif
http://www.dailyvorerpata.com/ad/bb.jpg
http://www.dailyvorerpata.com/ad/Screenshot_1.jpg
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
সাউথ ওয়েস্টার্ন মিডিয়া গ্রুপ


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৪১০১০০৮৭, ৪১০১০০৮৬, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৪১০১০০৮৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৪১০১০০৮৫
অনলাইন ইমেইল: [email protected] বার্তা ইমেইল:[email protected] বিজ্ঞাপন ইমেইল:[email protected]