শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ ৯ আশ্বিন ১৪২৯

শিরোনাম: জাতীয় নির্বাচন: ভোট দিতে লাগবে ১০ আঙ্গুলের ছাপ    করোনায় আর ৪ জনের মৃত্যু    বিদায়বেলায় অঝোরে কাঁদলেন ফেদেরার, অশ্রুসিক্ত নাদালও    তালাবদ্ধ ঘরে পড়েছিল বৃদ্ধ দম্পতির হাত-মুখ বাঁধা লাশ    জমিতে কাজ করার সময় বজ্রপাতে ২ কৃষকের মৃত্যু    চলন্ত ট্রেনে উঠতে গিয়ে প্রাণ গেল বিশ্ববিদ্যালয়ছাত্রের    পর্যটকদের জন্য দুয়ার খুললো ভুটান   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সৈকতে পর্যটকদের গোসল!
মোহাম্মদ শফিক, কক্সবাজার জেলা প্রতিনিধি
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ১১ আগস্ট, ২০২২, ১০:০৮ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট সুস্পষ্ট লঘুচাপের কারণে চলছে স্থানীয় ৩নং সর্তক সংকেত। এর প্রভাবে কক্সজার সমুদ্র সৈকত যেমনি প্রচন্ড উত্তাল রয়েছে তেমনি টানটান জোয়ারের স্্েরাত এবং একের পর এক গর্জন দিয়ে বড়ো বড়ো ঢেউগুলো বালিয়াড়িতে আচড়ে পরছে। সেই সাথে গত দু’দিন ধরে রোদ-মেঘেরে লুকোচুরি মধ্যে ধমকা হাওয়াসহ থেমে থেমে বৃষ্টিও হচ্ছে। কিন্তু তা উপেক্ষা করে সমুদ্রে নামছে। এমনকি পাগলা ঢেউ উপেক্ষা করে জীবনের ঝুঁকি লাবনী পয়েন্ট, সুগন্ধা পয়েন্ট ও কলাতলি পয়েন্টে গোসল করছে হাজার হাজার পর্যটক। 

আজ সকাল থেকে কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতের বিভিন্ন পেয়েন্টে সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, ৩নং স্থানীয় সর্তক সংকেত এর   প্রভাবে সমুদ্র উত্তাল রয়েছে। তবে পর্যটকরা তা মানছেন না। হাজারো পর্যটক সমুদ্রস্নানে মগ্ন রয়েছেন। সৈকতে সতর্কতামূলক লাল পতাকা পুতে দেওয়া হলেও সেদিকে কারো খেয়াল নেই।

পর্যটন সেল এর দায়িত্বরত কক্সবাজার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজেস্ট্রট (এডিএম) মোঃ আবু সুফিয়ান বলেন,সমুদ্র উত্তাল, চলছে ৩নং সতর্ক সংকেত। তবুও বৃষ্টি¯œাত সমুদ্র সৈকত ও পাগলা ঢেউ উপভোগ করতে ছুটে আসছে পর্যটক। কিন্তু এ সময় ঝুঁকি নিয়ে সমুদ্রে না নামতে মাইকিং থেকে শুরু করে নানা ভাবে পর্যটকদের সতর্ক করছে এবং বীচ কর্মীরা ঘুমহীন প্রচার-প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছে। তার পরও অনেক পর্যটক বাঁধা না মেনে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সৈকতে গোসলে নামছে। তবে আমরা চেষ্টা অব্যাহত রাখছি যেন, এ দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ায় কেউ যেন সৈকতে  না নামতে পারে”।    

এরশাদ উল্লাহ নামের এক পর্যটক বলেন, ‘কক্সবাজারে বেড়াতে এসে আবহাওয়া হঠাৎ খারাপ হয়ে গেল। পরিস্থিতি এমন হবে জানতাম না। সামনে কয়েকদিন বেড়ানোর চিন্তা থাকলেও আজই চলে যাবো।’

কক্সবাজার টুরিস্ট পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রেজাউল করিম বলেন, ‘বৈরী আবহাওয়ায় যে সমস্ত পর্যটকরা সমুদ্রের এদিক সেদিক ঘোরাঘুরি ও সমুদ্রে গোসল করতে নামছেন তাদের তুলে দেওয়া হচ্ছে। এছাড়া পর্যটকদের সতর্কে মাইকিং করা হচ্ছে। 



চট্টগ্রাম থেকে ফাহমিদা নামের পর্যটক দম্পতিকে ৩নং সংকেত চলছে, সাগর খুবই উত্তাল রয়েছে, এটি আপনারা জানেন কি না ? জিজ্ঞেসা করা হলে বলেন, “ জানি আমরার নিজেরা সতর্ক হয়ে গোসল করছি। আর এই বৃষ্টি¯œাত সাগর উপভোগ করতে এসেছি। এ পরিবেশটা আমাদের খুবই ভালো লাগছে। এখন কোন চাপও নেই হোটেল ও রুম ভাড়াসহ অন্যান্য সবকিছু স্বাভাবিক এছাড়া সব দিকে স্বস্থি পাচ্ছি”।

ঢাকা থেকে আসা হারুন-উর রশিদ দম্পতি বলেন, ‘কক্সবাজার এসেছি তিন দিন আগে, আজ রাতে চলে যাবো। শেষ দিন মনের মতো ঝুঁকি নিয়ে হলেও গোসল দিতে সমুদ্রে নেমেছিলাম।  কিন্তু লাইফগার্ড কর্মী ও ট্যুরিস্ট পুলিশ গোসলে বাঁধা দিচ্ছে। বৈরী আবহাওয়ার কারণে আর আনন্দ করা গেল না।’

লাইফগার্ড কর্মী মোহাম্মদ হোসেন কালু বলেন, ‘সমুদ্রে ৩ নং স্থানীয় সতর্ক সংকেত থাকায় আমরা কোনো পর্যটককে সমুদ্রের পানিতে নামতে দিচ্ছি না। তারপরও কিছু পর্যটক নির্দেশনা না মেনে গোসল করতে নামছেন, ট্যুরিস্ট পুলিশ তাদের তুলে দিচ্ছে।’

কক্সবাজার আবহাওয়া অধিদপ্তরের প্রধান আবহাওয়াবিদ মনোয়ার হোসেন বলেন, “৩নং স্থানীয় সর্তক সংকেত বহাল রয়েছে। আজ সারাদিন ৫৩ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। এর প্রভাবে জোয়ারের পানি ২ থেকে ৪ফুট উচ্চতায় বেশি হবে। স্বাভাবিক এর চেয়ে বাতাস বেশি থাকবে এবং কয়েকদিন বৃষ্টিপাত হবে। এছাড়া ওড়িষ্যা উপকূল ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত স্থল নিম্নচাপটি পশ্চিম দিকে অগ্রসর ও দুর্বল হয়ে সুস্পষ্ট আকারে বর্তমানে ভারতে অবস্থান করছে। এটি আরও উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর ও উপকূলীয় এলাকায় বায়ুচাপ পার্থক্যের আধিক্য বিরাজ করছে। এতে সমুদ্র বন্দরসমূহ, উত্তর বঙ্গোপসাগর ও উপকূলীয় এলাকায় ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে”।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
http://dailyvorerpata.com/ad/apon.jpg
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
সাউথ ওয়েস্টার্ন মিডিয়া গ্রুপ


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৪১০১০০৮৭, ৪১০১০০৮৬, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৪১০১০০৮৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৪১০১০০৮৫
অনলাইন ইমেইল: [email protected] বার্তা ইমেইল:[email protected] বিজ্ঞাপন ইমেইল:[email protected]