শুক্রবার ১২ আগস্ট ২০২২ ২৭ শ্রাবণ ১৪২৯

শিরোনাম: ক্রিকেট নাকি বেটিং, সাকিবকেই সিদ্ধান্ত নিতে হবে: পাপন    জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে মন্ত্রণালয়কে বিস্তারিত ব্যাখ্যার নির্দেশ    ডলারের কারণে ভোজ্যতেলের দামে সুফল পাওয়া যাচ্ছে না: বাণিজ্যমন্ত্রী    রাজধানীতে হোটেলে মিলল নারী চিকিৎসকের গলাকাটা লাশ    সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের টাকা সম্পর্কে সরকার কেন তথ্য চায়নি: হাইকোর্ট    জম্মু-কাশ্মীরে সেনা ক্যাম্পে হামলা, ৩ সেনাসহ নিহত ৫    বিশ্বব্যাপী বেড়েছে মৃত্যু-শনাক্ত   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
দম্পতির পেটে শতকোটি টাকার চাল-ডাল!
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: শুক্রবার, ২০ মে, ২০২২, ১০:২৩ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

ফেনীর তৌহিদ আনোয়ার। ২০১৯ সালে খোলেন অ্যাসেট গ্রুপ নামের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। সাথে নেন স্ত্রী লুতফুর নাহারকেও। সেনাবাহিনী, পুলিশ, বিজিবিসহ নানা বাহিনীর খাদ্য সরবরাহকারী পরিচয় দিয়ে ৬০টি প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে চাল, ডাল, চিনিসহ নেন ২০০ কোটি টাকার পণ্য। তবে ১০০ কোটি টাকা শোধ না করেই ব্যবসা গুটিয়ে যান আত্মগোপনে। অবশেষে প্রতারণা মামলায় তৌহিদ ও তার স্ত্রীকে গ্রেপ্তার করেছে ডিবি পুলিশ।

রাজধানীর হাতিরপুলে ইস্টার্ন প্লাজায় অ্যাসেট গ্রুপের প্রধান কার্যালয়। চাল, ডাল, চিনিসহ নানা ভোগ্যপণ্য সরবরাহকারী হিসেবে নিজেকে পরিচয় দিতেন তৌহিদ আনোয়ার। তবে দেড় মাস ধরে সেখানে ঝুলছে তালা। এরপর থেকেই সেখানে পাওনাদারদের ভিড় জমছে। 

সেই প্রতিষ্ঠান, ঢাকার দুই ঠিকানা ও গ্রামের বাড়িতে গিয়ে তৌহিদ আনোয়ারকে না পেয়ে মামলা করেন শাহ মখদুম রাইস মিল কর্তৃপক্ষ। চার কোটি ৭৯ লাখ টাকা পাওনা তাদের। ডিবি কার্যালয়ে তাদের মতো পাওনাদার অনেকেই এসেছেন। তাদের মধ্যে একজন অভিযোগে জানান, আমাদের প্রতিষ্ঠান থেকে অ্যাসেট গ্রুপে প্রায় ২৬ লাখ টাকার মতো চাল সরবরাহ করি। টাকা চাওয়া হলে প্রত্যেকবার ঘুরিয়ে দিয়ে এখন পর্যন্ত টাকা তারা পরিশোধ করেনি।’



অবশেষে দেড় মাস আত্মগোপনে থাকার পর গত মঙ্গলবার তৌহিদ আনোয়ারের সন্ধান পান গোয়েন্দারা। এরপর গ্রেফতার হন স্ত্রী লুতফুর নাহারসহ। তাদের কাছ থেকে জানা গেছে, ঢাকা, রাজশাহী, চট্টগ্রামসহ দেশের প্রায় ৬০টি প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে পণ্য নিয়েছে অ্যাসেট গ্রুপ। প্রথম কিস্তির টাকা শোধ করার পর তিন বছরের দেনা ১০০ কোটি টাকা।

এ বিষয়ে ডিএমপি গোয়েন্দা রমনা বিভাগের উপ-কমিশনার এইচ এম আজিমুল হক বলেন, ‘অ্যাসেট গ্রুপের কর্ণধার তৌহিদ আনোয়ার বিভিন্ন কোম্পানির কাছ থেকে মালামাল সংগ্রহ করেন। গত তিন বছরে তারা প্রায় ২০০ কোটি টাকার লেনদেন করেছেন। বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে আমরা আবেদন করে তার কোথায় কী ধরনের লেনদেন আছে সেটা খতিয়ে দেখব।’

অ্যাসেট গ্রুপের এমডি তৌহিদ আনোয়ার গ্রেফতার হলেও তার সহযোগীরা এখনো পলাতক আছে। তাদের ধরতে ডিবির অভিযান এখনো অব্যাহত আছে বলে জানা গেছে।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
http://dailyvorerpata.com/ad/apon.jpg
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
সাউথ ওয়েস্টার্ন মিডিয়া গ্রুপ


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৪১০১০০৮৭, ৪১০১০০৮৬, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৪১০১০০৮৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৪১০১০০৮৫
অনলাইন ইমেইল: [email protected] বার্তা ইমেইল:[email protected] বিজ্ঞাপন ইমেইল:[email protected]