মঙ্গলবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১২ আশ্বিন ১৪২৯

শিরোনাম: করোনায় একজনের মৃত্যু    শিনজো আবের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন    বৈশ্বিক সংকট নিয়ে রাজনৈতিক ফায়দা লুটতে চায় বিএনপি: কাদের    ট্রফি ভেঙে ফেলা সেই ইউএনওকে ঢাকায় বদলি    পঞ্চগড়ে নৌকাডুবি: মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে ৬৬    আগামী ৫ দিনে বৃষ্টিপাত বাড়ার আভাস দিল আবহাওয়া অফিস    পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবীর তারিখ ঘোষণা   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
শ্রীলঙ্কার সঙ্গে বাংলাদেশের তুলনা আরেকটি ষড়যন্ত্রের অংশ: কে এম লোকমান হোসেন
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: মঙ্গলবার, ৫ এপ্রিল, ২০২২, ১১:৫৭ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

শ্রীলঙ্কা এখন ঋণে জর্জরিত হয়ে আছে। তাদের দেশে যারা দায়িত্বে ছিল তারা এখন দেশ থেকে পালাচ্ছে। যে কাণ্ডারি দেশকে সামনের দিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য বৈঠা হাতে নিয়েছিল, সেই কাণ্ডারি এখন এটা ছুড়ে ফেলছে। এটাতো কাপুরুষের কথা। আমরা আশা করছি বর্তমানে জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে যেভাবে মেগা প্রকল্পের কাজ চলমান আছে তারই ধারাবাহিকতায় ২০৪১ সালের আগেই এই লক্ষে পৌঁছে যেতে পারবো আমরা।

দৈনিক ভোরের পাতার নিয়মিত আয়োজন ভোরের পাতা সংলাপের ৬৬৫তম পর্বে মঙ্গলবার (৫ এপ্রিল) এসব কথা বলেন আলোচকরা। ভোরের পাতা সম্পাদক ও প্রকাশক ড. কাজী এরতেজা হাসানের নির্দেশনা ও পরিকল্পনায় অনুষ্ঠানে আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন-  সেক্টর কমান্ডার ফোরামের যুগ্ম মহাসচিব বীর মুক্তিযোদ্ধা  মো. আব্দুল মাবুদ, সর্ব ইউরোপীয় আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি, ইতালি বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশনের প্রথম নির্বাচিত সভাপতি কে এম লোকমান হোসেন। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ভোরের পাতার বিশেষ প্রতিনিধি উৎপল দাস।

কে এম লোকমান হোসেন বলেন, এই যে শ্রীলঙ্কার সাথে বাংলাদেশে তুলনা করা হচ্ছে এটাকে আমি মূলত আরেকটি ষড়যন্ত্র মনে করছি। যারা বাংলাদেশকে চিনে এবং জানে তারা কখনই এই কথা বলতে পারেনা। আমরা লক্ষ্য করছি পৃথিবীর অর্থনৈতিক শক্তিশালী দেশগুলো আছে তারা যেভাবে বাংলাদেশকে সহযোগিতা করছে সেটা কিন্তু কখনোই করতো না যদি না বাংলাদেশ আজ এই অবস্থানে থাকতো। খালি থালায় কিন্তু কেউ ভিক্ষাও দেয়না। আজ বাংলাদেশ একটি উন্নয়নশীল রাষ্ট্র। বাংলাদেশকে যদি আমরা শ্রীলঙ্কার সাথে তুলনা করি তাহলে এটা আমাদের জন্য সবচেয়ে বড় ভুল হবে। বাংলাদেশের মানুষ তাদের কায়িক পরিশ্রমের দ্বারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে সমুন্নত রেখে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা নিজের মধ্যে ধারণ করে এই দেশটাকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে। আমরা লক্ষ করি যে, পৃথিবীর অন্যান্য দেশগুলো দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর প্লান মাফিক যার যার দেশকে এগিয়ে নিয়ে গিয়েছিল আজ বাংলাদেশও কিন্তু জননেত্রী শেখ হাসিনা তার প্লান মাফিক এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। আজ বাংলাদেশের রিজার্ভ ও শ্রীলঙ্কার রিজার্ভের পরিমাণ কেমন এটা সবাই জানে। আজ বাংলাদেশ খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ। বাংলাদেশ আজ নিজের খাদ্যের চাহিদা জোগান দিয়ে পৃথিবীর অন্যান্য দেশে খাদ্য রফতানি করছে। জননেত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের জনগণের সার্বিক কল্যাণ, বিকাশ এবং মুক্তির লক্ষ্যে অগ্রণী হিসেবে কাজ শুরু করেছেন। তিনি প্রমাণ করেছেন যে, বাংলাদেশে গণতন্ত্র বিকাশের জন্য তার বিকল্প নেই। তার সততা, নিষ্ঠা, যুক্তিবাদী মানসিকতা, দৃঢ়তা, মনোবল, প্রজ্ঞা এবং অসাধারণ নেতৃত্ব বাংলাদেশকে বিশ্ব অঙ্গনে এক ভিন্ন উচ্চতায় প্রতিষ্ঠিত করেছে।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
http://dailyvorerpata.com/ad/apon.jpg
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
সাউথ ওয়েস্টার্ন মিডিয়া গ্রুপ


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম


©ডেইলি ভোরের পাতা ডটকম

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৪১০১০০৮৭, ৪১০১০০৮৬, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৪১০১০০৮৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৪১০১০০৮৫
অনলাইন ইমেইল: [email protected] বার্তা ইমেইল:[email protected] বিজ্ঞাপন ইমেইল:[email protected]