রোববার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ ৪ আশ্বিন ১৪২৮

শিরোনাম: ই-কমার্স গ্রাহকদের নিয়ে পরামর্শ দিলেন হাইকোর্ট    আদালতে জেমস    খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ আরও বাড়ল    জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান হলেন শাফিন আহমেদ    বিএনপি দেশে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে: ওবায়দুল কাদের    ইভ্যালির রাসেল দম্পতির বিরুদ্ধে আরেক মামলা    ডিআইজি প্রিজন্স পার্থ গোপাল কারাগারে   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের নোটিস, জবাব দিতে সময় চায় ইভ্যালি
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: সোমবার, ২ আগস্ট, ২০২১, ১০:১৮ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

কারণ দর্শানোর নোটিসের পরিপূর্ণ জবাব দিতে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের কাছে ছয় মাস সময় চেয়েছে ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালি। গত রোববার ইভ্যালির পক্ষ থেকে একটি চিঠি দিয়ে এ সময় চাওয়া হয়েছে। ঈদের আগে গত ১৯ জুলাই ইভ্যালিকে দেওয়া এ নোটিসের জবাব দেওয়ার শেষ সময় ছিল গতকাল। 

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ডব্লিউটিও সেলের মহাপরিচালক মো. হাফিজুর রহমান বলেন, ‘ইভ্যালির পক্ষ থেকে কিছু একটা এসেছে। এখনো পড়ে দেখা হয়নি।’ গ্রাহক ও মার্চেন্টদের সুরক্ষা এবং ডিজিটাল কমার্স খাতের ওপর নেতিবাচক প্রভাব প্রতিরোধের লক্ষ্যে ইভ্যালির বিরুদ্ধে কেন আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না, তা জানতে চেয়ে ইভ্যালিকে কারণ দর্শানোর নোটিসটি দিয়েছিল বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। এতে কোম্পানিটির ব্যবসা পদ্ধতিও জানতে চাওয়া হয়েছিল। ইভ্যালির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মোহাম্মদ রাসেলের কাছে পাঠানো কারণ দর্শানোর নোটিসের সঙ্গে ছয়টি বিষয় আবশ্যিকভাবে জানানোর কথা বলা হয়েছিল। 

এতে বলা হয়, গ্রাহকের কাছ থেকে অগ্রিম অর্থ নিয়ে যথাসময়ে পণ্য সরবরাহ না করার পাশাপাশি মার্চেন্টদের কাছ থেকে পণ্য নিয়েও অর্থ পরিশোধ করছে না ইভ্যালি। এতে বিপুলসংখ্যক ক্রেতা এবং বিক্রেতার আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। বলা হয়েছিল, গত ১৪ মার্চ পর্যন্ত গ্রাহক ও মার্চেন্টদের কাছে মোট ৪০৭ কোটি টাকা দায়ের বিপরীতে ইভ্যালির কাছে মাত্র ৬৫ কোটি টাকার চলতি সম্পদ কেন? বাকি টাকা ইভ্যালির কাছে থাকলে বিস্তারিত তথ্য দিতে হবে, না থাকলে দিতে হবে পরিপূর্ণ ব্যাখ্যা। এ ছাড়া গত ১৫ জুলাই পর্যন্ত গ্রাহক ও মার্চেন্টদের কাছে দায় এবং তা পরিশোধের বর্তমান অবস্থা ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা, ব্যবসা শুরুর পর থেকে গ্রাহকদের কাছ থেকে ইভ্যালি কত টাকা নিয়েছে, মার্চেন্টদের কত টাকা পরিশোধ করেছে এবং প্রশাসনিক ও অন্যান্য খাতে কত ব্যয় করেছে, তার পূর্ণাঙ্গ বিবরণ জানানোর কথা বলা হয়েছিল। বর্তমান অবস্থা থেকে উত্তরণের পরিকল্পনা এবং নীতিমালা এবং নির্দেশিকার সঙ্গে সামঞ্জস্যহীন ব্যবসা পদ্ধতি জানানোর কথাও বলা হয়েছিল ইভ্যালিকে। ইভ্যালির এমডি মোহাম্মদ রাসেল বলেন, অনেক তথ্য-উপাত্ত গোছাতে হবে। তাই মন্ত্রণালয়ের কাছে আমরা ছয় মাস সময় চেয়েছি।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
https://www.dailyvorerpata.com/ad/agrani.gif
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]