শুক্রবার ৬ আগস্ট ২০২১ ২১ শ্রাবণ ১৪২৮

শিরোনাম: প্রযোজক রাজ মাদক মামলায় রিমান্ডে    পরীমনিকে রিমান্ডে পেল পুলিশ    রাতেই আদালতে পরীমনি-রাজ, রিমান্ড আবেদন     ভারতকে বাদ দিয়ে ব্রিটেনের লাল তালিকায় বাংলাদেশ    সিনোফার্মের সাড়ে ৭ কোটি টিকা কিনছে বাংলাদেশ    ভ্যাট দিল গুগল    ইতিহাসের সর্বোচ্চ মৃত্যু দেখলো দেশ   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
সুতা-কাপড় রপ্তানিতে বন্ডের শর্ত বাতিলের দাবি বিটিএমএর
অর্থনৈতিক প্রতিবেদক
প্রকাশ: শুক্রবার, ১১ জুন, ২০২১, ৭:৫৫ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

বাজেটে শতভাগ রপ্তানিমুখী বন্ডেড ওয়্যার হাউস বা স্পেশাল বন্ডেড ওয়্যার হাউস লাইসেন্সধারী প্রতিষ্ঠানের ওপর সুতা ও কাপড়ের প্রচ্ছন্ন রপ্তানির বাধ্যবাধকতা আরোপ করায় বস্ত্রকলের মালিকেরা ক্ষুব্ধ হয়েছেন। তাঁরা শর্তটি বাতিলের দাবি জানিয়ে বলেছেন, কোনো প্রকার আলোচনা না করেই বাজেটে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রস্তাবটি দেওয়া হয়েছে। এটি প্রচ্ছন্ন রপ্তানিকে বাধাগ্রস্ত করবে। 

আগামী ২০২১–২২ অর্থবছরের জন্য প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর প্রতিক্রিয়া জানাতে সম্প্রতি আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেছেন বস্ত্রকল মালিকদের সংগঠন বিটিএমএর নেতারা। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ আলী। আরও উপস্থিত ছিলেন সহসভাপতি ফজলুল হক, আবদুল্লাহ আল মামুন, পরিচালক সৈয়দ নূরুল ইসলাম, আবদুল্লাহ মোহাম্মদ জুবায়ের প্রমুখ।

বিটিএমএ সভাপতি বলেন, ‘নিট ও ওভেন পোশাক রপ্তানিকারক অনেকেরই বন্ড লাইসেন্স নেই। তারা স্থানীয়ভাবে ব্যাক টু ব্যাক ঋণপত্রের (এলসি) মাধ্যমে রপ্তানির জন্য দেশের বস্ত্রকল থেকে সুতা ও কাপড় সংগ্রহ করে। আমাদের জানামতে, নিট পোশাকের ৭০ শতাংশের বেশি কারখানা তাদের প্রয়োজনীয় সুতার ৮০ শতাংশের বেশি স্থানীয়ভাবে সংগ্রহ করে। এ কারণে তাদের কোনো বন্ড লাইসেন্স নেই।’ তিনি বলেন, ‘আমরা রপ্তানিকারকদের কাছে ব্যাক টু ব্যাক ঋণপত্রের মাধ্যমে শূন্য ভ্যাটে এবং প্রচলিত হারে ভ্যাট দিয়ে স্থানীয় ব্যবসায়ীদের কাছে সুতা ও কাপড় বিক্রি করে থাকি।’



মোহাম্মদ আলী আমদানি করা কাপড়ের ট্যারিফ ভ্যালু পুনর্নির্ধারণের দাবি জানান। তিনি বলেন, ‘বিদেশ থেকে কাপড় আমদানিতে ট্যারিফ ভ্যালু এখনই পরিবর্তন করা সম্ভব না হলে সম্পূরক শুল্ক ও নিয়ন্ত্রণমূলক শুল্ক ন্যূনতম ৫০ শতাংশ ধার্য করার অনুরোধ করছি।’ এ ছাড়া বস্ত্র খাতে ব্যবহৃত সব ধরনের যন্ত্রাংশ ১ শতাংশ শুল্ক দিয়ে আমদানির সুযোগ দাবি করেন তিনি।

তৈরি পোশাক ও বস্ত্র রপ্তানির ওপর বর্তমানে দশমিক ৫০ শতাংশ হারে উৎসে কর আরোপ করা আছে। বাজেটে উৎসে করে কোনো পরিবর্তন আনা হয়নি। বিটিএমএ উৎসে কর আগের মতো দশমিক ২৫ শতাংশ করার দাবি জানিয়েছে।


ভোরের পাতা/কে 

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


আরও সংবাদ   বিষয়:  রপ্তানি   বিটিএমএর   কাপড়   আরোপ  







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
https://www.dailyvorerpata.com/ad/agrani.gif
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]