শুক্রবার ২৩ এপ্রিল ২০২১ ১০ বৈশাখ ১৪২৮

শিরোনাম: শপিংমল ও দোকানপাট খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত    মুন্সিগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবক লীগের ধান কাটা কার্যক্রমের শুভ সূচনা    ৫৪১ রানে বাংলাদেশের ইনিংস ঘোষণা    বিএনপি ছাড়ছেন মির্জা আব্বাস দম্পত্তি!    ইলিয়াস আলী ইস্যু: মির্জা আব্বাসের বক্তব্যের ব্যাখ্যা চেয়েছে বিএনপি    পিআইবির ডিজি পদে ফের নিয়োগ পেলেন জাফর ওয়াজেদ    সাম্প্রদায়িক উগ্রগোষ্ঠীকে কঠোর হস্তে দমন করতে হবে: এম এ লিংকন মোল্লা   
জামালপুরের সেই ডিসিকে যে নতুন শাস্তি দেওয়া হল!
ভোরের পাতা ডেস্ক
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ৪ মার্চ, ২০২১, ৬:৪৬ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

জামালপুরের সাবেক ডিসি আহমেদ কবীরকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় বেতন গ্রেড কমানোর শাস্তি দিয়েছে। অফিসের একজন নারী পিয়নের সঙ্গে আপত্তিকর সম্পর্কে জড়ানোয় শাস্তি হিসাবে জামালপুরের সাবেক ডিসি আহমেদ কবীরের বেতন গ্রেড কমিয়ে দিয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। উপসচিব হিসাবে তিনি বর্তমানে ৫ম গ্রেডে বেতন পান। শাস্তির কারণে তিনি এখন ২০১৫ সালের জাতীয় বেতন স্কেল অনুযায়ী ৬ষ্ঠ গ্রেডের সর্বনিম্ন ধাপের বেতন পাবেন।

কর্মচারী (শৃঙ্খলা ও আপিল) বিধিমালা-২০১৮ অনুযায়ী গুরুদন্ড হিসেবে শাস্তির বিধান রাখা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে- নিম্নপদ বা নিম্ন বেতন গ্রেডে অবনমিতকরণ, বাধ্যতামূলক অবসর, চাকরি থেকে অপসারণ, চাকরি থেকে বরখাস্ত।

অর্থাৎ, সিনিয়র সহকারী সচিব পদোন্নতি পাওয়ার পর যে বেতন পান আহমেদ কবীর তাই পাবেন। তিনি উপসচিব পদে বহাল থাকলেও তার বেতন অর্ধেক কমে যাচ্ছে। খবর সংশ্লিষ্ট সূত্রের।

তদন্ত সংশ্লিষ্টরা জানান, নিম্ন পদে নামিয়ে দেওয়ার শাস্তি দেওয়া হলে আহমেদ কবীর বিদ্যমান বেতনই পেতেন। আর নিম্ন বেতন গ্রেডের শাস্তি দেওয়ায় তাঁর বেতন অর্ধেক কমে গেল, তবে তিনি পদে বহাল থাকলেন।

২০১৯ সালের ৩০ অক্টোবর আহমেদ কবীরকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়। লিখিত কারণ দর্শানোর সঙ্গে তিনি ব্যক্তিগত শুনানি চান। তাঁর বক্তব্য গ্রহণযোগ্য না হওয়ায় মন্ত্রণালয় তাঁর বিষয়ে তদন্ত কর্মকর্তা নিয়োগ দেয়। মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব (বাজেট) মাসুদুল হাসানের প্রথম তদন্তে ভুল থাকায় দ্বিতীয় দফায় প্রতিবেদন দেন। ওই প্রতিবেদনের ভিত্তিতে আহমেদ কবীরকে শাস্তি দেওয়া হয়েছে। তদন্ত কর্মকর্তা উল্লেখ করেছেন, অভিযুক্তের বিরুদ্ধে সরকারি কর্মচারী (শৃঙ্খলা ও আপিল) বিধিমালা-২০১৮-এর বিধি ৩(খ) অনুযায়ী অসদাচরণের অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে।

শাস্তির প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, তদন্ত প্রতিবেদনসহ অন্য বিষয়গুলো পর্যালোচনা করে তাঁকে তিন বছরের জন্য নিম্ন বেতন গ্রেডে অবনমিতকরণের গুরুদণ্ড দেওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে পিএসসির পরামর্শ চাওয়া হলে তারা একমত পোষণ করেছে। একই সঙ্গে রাষ্ট্রপতিও এই বিষয়ে সম্মতি দিয়েছেন বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে।

ভোরের পাতা/এএম

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


আরও সংবাদ   বিষয়:  জামালপুরের ডিসি   ডিসি আহমেদ কবীর  







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  

সারাদেশ

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]