বৃহস্পতিবার ● ২৯ অক্টোবর ২০২০ ● ১৩ কার্তিক ১৪২৭ ● ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
মাদ্রাসা শিক্ষায় নৈতিকার পাশাপাশি তথ্য প্রযুক্তিও যোগ করতে হবে: শৈবাল তালুকদার
সিনিয়র প্রতিবেদক
প্রকাশ: শনিবার, ১৭ অক্টোবর, ২০২০, ১০:০৯ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

মাদ্রাসা শিক্ষায় নৈতিকার পাশাপাশি তথ্য প্রযুক্তিও যোগ করতে হবে: শৈবাল তালুকদার

মাদ্রাসা শিক্ষায় নৈতিকার পাশাপাশি তথ্য প্রযুক্তিও যোগ করতে হবে: শৈবাল তালুকদার

শেখ হাসিনা এমন একজন রাজনীতিবিদ, সীমানা পেরিয়ে তিনি আজ বিশ্ব নেতা। শেখ হাসিনার হাতে যতদিন দেশ, পথ হারাবে না বাংলাদেশ। আসলেই কথাটা যথার্থ বটে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আছেন বলেই আমাদের সর্বশেষ আস্থার স্থল আছে, তিনি আমাদের ভরসার প্রতীক। সারা বিশ্ব যেখানে মাত্র একটি মাত্র দুর্যোগ নিয়ে মোকাবেলা করছে তখন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী একসাথে তিনটি দুর্যোগ মোকাবেলা করছে এবং করছে। করোনা, বন্যা ও কিছুদিন আগে হয়ে যাওয়া আম্পান মোকাবেলাও করে যাচ্ছেন তিনি। এতো কিছুর পরো শেখ হাসিনার নেতৃত্বে অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রায় বয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। শেখ হাসিনার উন্নয়ন এখন বিস্ময়ের নাম।

শনিবার দৈনিক ভোরের পাতার নিয়মিত আয়োজন ভোরের পাতা সংলাপের ১৩০ তম পর্বে এসব কথা বলেন আলোচকরা। আলোচক হিসাবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য এবং সংসদ সদস্য  গ্লোরিয়া ঝর্ণা সরকার, বরিশাল-৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাড. শেখ টিপু সুলতান, অপরাজেয় বাংলার সদস্য সচিব এইচ রহমান মিলু এবং যুক্তরাষ্ট্রের সিলিকন ভ্যালিতে কর্মরত প্রকৌশলী, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা শৈবাল তালুকদার । দৈনিক ভোরের পাতার সম্পাদক ও প্রকাশক ড. কাজী এরতেজা হাসানের পরিকল্পনা ও নির্দেশনায় অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনা করেন সাবেক তথ্য সচিব নাসির উদ্দিন আহমেদ।

শৈবাল তালকুদার বলেন, বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত বিপ্লব পূরণের পথেই রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তার নেতৃত্বেই এদেশের প্রতিটি ক্ষেত্রে উন্নয়নের সূচক দেখতে পাচ্ছি। আর কয়েকদিন পর পদ্মা সেতুর উদ্বোধন করা হবে। যখন পদ্মা সেতু নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হলো, তখন এদেশেরই কিছু মানুষ বিরোধিতা করেছিল। যখন বিশ্বব্যাংক, এশিয়ান উন্নয়ন ব্যাংক সরে গেল, তখন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষণা দিলেন নিজস্ব অর্থায়নে স্বপ্নের পদ্মা সেতু এখন উদ্বোধনের অপেক্ষায়। এখন বিশ্ববাসী অবাক বিস্ময়ে তাকিয়ে দেখছে হেনরি কিসিন্জারের তলাবিহীন ঝুড়ি বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। কৃষিতে বিপ্লব ঘটিয়েছে বাংলাদেশ। ইন্দোনেশিয়ার মতো দেশকেও ধান উৎপাদনে ছাড়িয়েছে। তথ্য প্রযুক্তিখাতে বিশ্বের সেরা ৫ টি দেশের একটি এখন বাংলাদেশ। সড়ক যোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি খাতের উন্নয়ন আমাদের ভবিষ্যত আরো মসৃণ করবে। শিক্ষাখাতেও আমাদের যথেষ্ট উন্নতি হয়েছে। এখন বাংলাদেশে ৬ লাখ ব্যক্তি ফ্রি ল্যান্সিং করছে। এটা বিস্ময়কর। একটা সমস্যা হচ্ছে, শিক্ষাক্ষেত্রে আমরা একটু পিছিয়ে আছে। অর্থকরী শিক্ষায় আমরা অগ্রসর হচ্ছি। কিন্তু নৈতিক শিক্ষায় একটু পিছিয়ে রয়েছি। মাদ্রাসা শিক্ষা ব্যবস্থার প্রয়োজন আছে, তাদের সবাইকে আমরা উন্নয়নের ধারায় যদি অংশগ্রণ না করাতে পারি; তাহলে পিছিয়ে পরবো। ধর্মীয় শিক্ষায় সরকারি তদারকি হচ্ছে না। তাই তাদের মধ্যে নৈতিক শিক্ষা এবং দেশপ্রেম ততটা কার্যকর হচ্ছে না। দেখুন মাদ্রাসার শিক্ষকরা এখন ধর্ষণ করছে। কিন্তু আমরা এর উল্টো দেখছি। তাই বলছি শিক্ষাক্ষেত্রে আমাদের আরো নজর দিতে হবে। তাদের নৈতিক অবক্ষয় রোধ করে তথ্য প্রযুক্তিগত শিক্ষায় শিক্ষিত করতে হবে। 

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »






https://www.dailyvorerpata.com/ad/BHousing_Investment_Press_6colX6in20200324140555 (1).jpg
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
https://www.dailyvorerpata.com/ad/431205536-ezgif.com-optimize.gif
https://www.dailyvorerpata.com/ad/agrani.gif
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: vorerpata24@gmail.com news@dailyvorerpata.com