শুক্রবার ● ৫ জুন ২০২০ ● ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ ● ১২ শওয়াল ১৪৪১
অপূর্বর পর আইনি ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারি তিশার
প্রকাশ: সোমবার, ১৮ মে, ২০২০, ২:১৩ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

অপূর্বর পর আইনি ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারি তিশার

অপূর্বর পর আইনি ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারি তিশার

নাট্যাভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্ব ও নাজিয়া হাসান অদিতির ৯ বছরের সাজানো সংসার ভেঙে গেছে। শোনা যাচ্ছে, চলতি বছরের শুরুতেই তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। ডিভোর্সের খবরটি এতদিন গোপন থাকলেও বোববার প্রকাশ্যে আনেন অদিতি।

এরপর সংসার ভাঙার নেপথ্যে অনেক কারণ আছে বললেও, আলাদাভাবে কিছুই উল্লেখ করেননি অদিতি। তবে গুজব উঠেছে এই সংসার ভাঙার পেছনে রয়েছেন অভিনেত্রী তানজিন তিশা। কয়েকটি অনলাইনও প্রকাশ করেছেন এমন খবর।

গুজব ছড়িয়েছে, অপূর্ব-তিশা নিয়মিত জুঁটি বেঁধে অভিনয় করতে গিয়ে সত্যিই সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। যদিও অপূর্বের স্ত্রী ব্যাপারটিতে আপত্তি জানান। অপূর্ব-তিশার সম্পর্ককে শুধু বন্ধুত্ব বলেও অবিশ্বাস করেন অদিতি। সব মিলিয়ে অভিযোগের তীর তিশার দিকে।

যদিও রোববার রাতে এক স্ট্যাটাসে অপূর্ব ডিভোর্সের কথা স্বীকার করে তাদের সন্তানের জন্য দোয়া চেয়েছেন। তবে এ অভিনেতা আরেক স্ট্যাটাসে অন্য অভিনেত্রীর সঙ্গে তার নাম জড়িয়ে গসিপ ছড়ালে আইননত ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন।
 
অপূর্ব ওই স্ট্যাটাসে উল্লেখ করন, ব্যাক্তিগত জীবন নিয়ে গসিপ করা এবং তীর্যক, মিথ্যা বানোয়াট মন্তব্য করে তাদের কষ্ট বাড়িয়ে দেয়ার মতো খারাপ কাজ গুলো থেকে সবাই বিরত থাকবেন। এর মধ্যে রসালো কোনো গল্প তৈরি করে সংবাদ করার চেষ্টা করবেন না, প্লিজ।

একইসঙ্গে এ অভিনেতা জানান, অত্যন্ত সম্মানের সাথে জানাচ্ছি আমি এবং আমার স্ত্রী অদিতি অত্যন্ত শান্তিপূর্ণ সমাধানের মধ্য দিয়ে আইনগতভাবে আমাদের সম্পর্কের ইতি টেনেছি। কোনো সংবাদমাধ্যম এই ব্যাপারটাতে তৃতীয় কাউকে জড়িয়ে কোনো ধরনের ভুল সংবাদ প্রকাশ করলে আমি তাদের বিরুদ্ধে আইসিটি আইনে আইনগত ব্যবস্থা নিব। অলরেডি প্রকাশিত কিছু সংবাদের লিংক আমি সংগ্রহ করেছি। 

এদিকে, এবার ভক্তদের গুজবে কান না দিতে আহ্বান জানিয়েছেন তানজিন তিশা। এমনকি গুজব যারা ছড়াবেন তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেবেন বলেও হুমকি দিয়েছেন তিনি। সোমবার ভোরে নিজের ফেসবুক পেজে তানজিন তিশা লিখেছেন, আমি সাধারণত গুজবে সাড়া দেই না। তবে আজ আমি অনুভব করছি যে, কয়েকটি অনলাইন সংবাদপত্রে প্রকাশিত চলমান গসিপ বন্ধ করা উচিত। দয়া করে আমার নামটি ব্যাবহার করবেন না। এতে আমারসহ শিল্পী এবং তার পরিবারের চলমান পরিস্থিতি আরও খারাপ হবে। আমি সত্যিকার অর্থে বিশ্বাস করি যে, কেউ আমার ইমেজ নষ্ট করতে ইচ্ছেকৃতভাবে এটি তৈরি করছে।

তিশা বলেন, দয়া করে এমন খবরে বিশ্বাস করবেন না, যার কোনো সত্যতা নেই। আমি আপনাদের সবাইকে অনুরোধ করছি, যেন এই গুজব ছড়িয়ে না দেন। কারণ, ভুয়া খবর ছড়িয়ে দেয়াও একটি সাইবার অপরাধ।

সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে তিশা বলেন, অনুরোধ করছি আপনাকে এই ধরনের ভিত্তিহীন গল্পে আমার নাম উল্লেখ না করার। যারা এই কাজটি চালিয়ে যাবেন, তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

এর আগে ২০১০ সালের ১৯ আগস্ট অভিনেত্রী সাদিয়া জাহান প্রভাকে বিয়ে করেছিলেন অপূর্ব। যদিও এর পরের বছরের ফেব্রুয়ারিতেই ডিভোর্স হয়ে যায় তাদের। ওই বছরের ১৪ জুলাই অপূর্ব পারিবারিকভাবে নাজিয়া হাসান অদিতিকে বিয়ে করেন। অপূর্ব-অদিতির দাম্পত্য জীবনে আয়াশ নামে এক পুত্র সন্তান রয়েছে।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »




সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]