রুপসী বাংলা

বজ্রপাতে গ্যাস লাইনে আগুন, নিহত ৫

:: ভোরের পাতা অনলাইন ::

সিলেটের গোলাপগঞ্জের ক্লাববাজার এলাকায় একটি বস্তিতে (কলোনী) ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে মা-ছেলেসহ পাঁচজন নিহত হয়েছেন। স্থানীয় লয়লু মিয়ার বস্তিঘরে বজ্রপাতের কারণে গ্যাস লাইনে আগুন ধরে গেলে ভয়াবহ এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয় বলে জানিয়েছেন সিলেট ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সের সহকারী পরিচালক তনয় বিশ্বাস।

রোববার ভোররাত ৩টার দিকে উপজেলার ঢাকা দক্ষিণ পাহাড় লাইনের লক্ষ্মণাবন্দ এলাকার কলোনিতে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, লয়লু মিয়ার কলোলীর ভাড়াটে বাবলু আহমদের স্ত্রী তাহমিনা বেগম (৩২), তাহমিনা-বাবলু দম্পতির ছেলে তাহসিন (২), বাবলুর কর্মচারী শেবুল (১৮), জিহাদ (২০) ও শেবু বেগম (২২)।

স্থানীয়রা জানান, ভোরে কলোনির বাসিন্দারা সবাই যখন ঘুমে ছিলেন, তখন বিকট শব্দে গ্যাসের রাইজার বিস্ফোরণ ঘটে। এ সময় বৃষ্টি ও বজ্রপাত হচ্ছিল। এ থেকেই সৃষ্ট আগুন মুহূর্তেই কলোনির মধ্যে ছড়িয়ে পড়ে। দুটি ঘর পুড়ে যায়। ঘরে আটকা পড়েই মারা যান পাঁচজন।

পরে লোকজন ঘরের জানালা ভেঙে ফজলু মিয়াকে উদ্ধার করে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়।

খবর পেয়ে সিলেট থেকে ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। এক ঘণ্টার চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন সিলেট জেলা পুলিশ সুপার মো. মনিরুজ্জামান। পরে তিনি সাংবাদিকদের জানান, আহত ফজলু মিয়াকে প্রয়োজনে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হবে এবং নিহতদের পরিবারকে সহায়তা দেওয়া হবে।

গোলাপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম ফজলুল হক শিবলী বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

 

অনলাইন/কে 

Spread the love

রুপসী বাংলা | আরো খবর