খেলার মাঠে

জাতীয় ক্রিকেটারদের বেতন আবার বাড়ছে

:: ভোরের পাতা অনলাইন ::

প্রায় প্রতিবছরই ক্রিকেটারদের বেতন বাড়িয়ে আসছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।  গত বছর অবশ্য বাড়ানো হয়েছিল প্রায় দ্গিুণ। বাংলাদেশ জাতীয় দলের ‘এ প্লাস’ শ্রেণিতে থাকা খেলোয়াড়দের বেতন আড়াই লাখ থেকে করা হয়েছিল চার লাখ টাকা। এবারও বাড়তে পারে। তবে কেমন বড়ানো হবে সে প্রস্তাব এখনো চূড়ান্ত হয়নি। সেই সাথে ক্রিকেটারদের সংখ্যা কমিয়ে আনা হবে।

সোমবার (১৬ এপ্রিল) মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে সংবাদ মাধ্যমকে এ তথ্য দেন বাংলাদেশ ক্রি‌কে‌টের পরিচালনা বিভাগের প্রধান আকরাম খান। বুধবার (১৮ এপ্রিল) বিসিবির পরিচালনা পরিষদের সভায় ক্রিকেটারদের বেতন বাড়ানোর প্রস্তাব করবে ক্রিকেট পরিচালনা কমিটি।

খেলোয়াড়দের সংখ্যা কমতে পারে বলে জানিয়েছেন বিসিবির এই কর্মকর্তা বলেন, এবার চুক্তিতে থাকা খেলোয়াড়ের সংখ্যা কমবে। অনেক কিছু বিবেচনা করা হবে। খেলোয়াড়ের সংখ্যা কম থাকলে ভালো হয়।

জাতীয় দলের কেন্দ্রীয় চুক্তিতে এখন ১৬ ক্রিকেটার রয়েছেন। এই সংখ্যা কমে কতজন হতে পারে সেটা অবশ্য জানা যায়নি।

গণমাধ্যমে আকরাম খান জানান, গতবার আমরা প্রায় ১০০ শতাংশ বেতন বাড়িয়েছিলাম। এবার থেকে ধীরে ধীরে এই বেতন আরও বাড়ানো হবে। বেতনকাঠামো নিয়ে অন্য দেশের সঙ্গে তুলনা করা ঠিক নয়। প্রতি বছর আমরা সাধারণত বেতন বাড়াই। এবারও সেভাবেই বাড়াব। তবে, পরিচালনা পর্ষদের সভা এ মাসে হলেও নতুন বেতনকাঠামো কার্যকর হবে ২০১৮ সালের জানুয়ারি থেকে।

গত বছর ‘এ প্লাস’ ক্যাটাগরিতে থাকা ক্রিকেটারদের বেতন আড়াই লাখ থেকে বাড়িয়ে করা হয় ৪ লাখ টাকা। ‘এ’ শ্রেণিতে থাকা ক্রিকেটারদের ২ লাখ থেকে বাড়িয়ে ৩ লাখ; ‘বি’ শ্রেণিতে থাকা ক্রিকেটারদের বেতন দেড় লাখ থেকে বাড়িয়ে ২ লাখ; ‘সি’ শ্রেণির ক্রিকেটারদের ১ লাখ থেকে বেতন বাড়িয়ে দেড় লাখ এবং ‘ডি’ শ্রেণিতে থাকা ক্রিকেটারদের বেতন ৭৫ হাজার থেকে বাড়িয়ে করা হয় ১ লাখ টাকা।

 

অনলাইন/কে 

Spread the love
  • 16
    Shares

খেলার মাঠে | আরো খবর