ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে স্পিডগান

  • ২৯-Aug-২০১৮ ১২:০০ পূর্বাহ্ণ
Ads

যানবাহনের বেপরোয়া গতির কারণে সড়কে অনেক দুর্ঘটনা ঘটে। যার কারণে অনেক প্রাণহানি হয়। তাই বেপরোয়া গতি নিয়ন্ত্রণের জন্যে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের ৫২ কিলোমিটার এলাকায় স্পিড ডিটেক্টর ডিজিটাল মেশিনের (স্পিডগান) ব্যবহার শুরু করেছে হাইওয়ে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে দুটি স্পটে দুটি স্পিডগান (গতি পরিমাপক যন্ত্র) ব্যবহার শুরু করা হচ্ছে।

মঙ্গলবার মহাসড়কে এ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন নরসিংদীর পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল-মামুন।

নরসিংদী পুলিশ সুপার জানান, ‘নরসিংদীর মহাসড়কে দুর্ঘটনা নিয়ন্ত্রণে আনতে ড্রাইভিং লাইসেন্স চেক, ফিটনেস পরীক্ষা সহ নানা কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় আজ মহাসড়কে গাড়ির গতি নিয়ন্ত্রণের জন্যে স্পিডগানের ব্যবহার শুরু করা হয়েছে।’  

নরসিংদীর ট্রাফিক ইন্সপেক্টর গোলাম মাওলা তালুকদার এই বিষয়ে জানান, ‘হাইওয়েতে যানবাহনের সর্বোচ্চ গতিসীমা থাকবে ৮০ কিঃমিঃ। এর বেশি হলেই স্পিডগানে ধরা পড়বে। ওই গাড়ির ছবিও সঙ্গে সঙ্গে প্রিন্ট হয়ে বের হয়ে আসবে। ধরা পড়া গাড়িকে জরিমানা করা হবে। জরিমানা আমাদের মূল উদ্দেশ্য নয়, সচেতন করাটাই মূল লক্ষ্য।

উল্লেখ্য, এর আগে ৮ আগস্ট হাইওয়ে পুলিশ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে স্পিডগান ব্যবহার শুরু করে। এছাড়াও দেশের অন্যান্য মহাসড়কেও স্পিডগান ব্যবহার করা হয়।

Ads
Ads