মিনিটেই জাবালে নূর থেকে নিউ ভিশন!

  • ১২-Aug-২০১৮ ১২:০০ পূর্বাহ্ণ
Ads

বাসচাপায় দুই কলেজ শিক্ষার্থী নিহতের পর রুট পারমিট বাতিল হওয়া জাবালে নূর পরিবহনের বাস এখন নিউ ভিশন ও আল-মক্কা পরিবহন নাম দিয়ে রাস্তায় নামানো হচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে শধু আল-মক্কা ও নিউ ভিশনই নয়, বাসের রং বদলে অন্য বিভিন্ন কোম্পানির নামে গাড়িগুলো রাস্তায় নামাতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে মালিকপক্ষ। শনিবার রাজধানীর মিরপুর এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাসের রং উঠানোর কাজ চলছে। বাসটির সামনে নিউ ভিশনের স্টিকার লাগানো হয়েছে।

তবে, তখনো পেছনে জাবালে নূর লিখাটা তুলে ফেলতে পারেনি। পেছনের অংশে ঘষা-মাজার কাজ করলেও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নজর এড়াতে সামনের অংশে নিউভিশনের স্টিকার লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে।

বাসটির রেজি. নম্বর ঢাকা মেট্রো ব-১১-৭৩৭৪। সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, জাবালে নূরের প্রায় ৩০০ বাস রয়েছে। যে গাড়িগুলোর অধিকাংশই লক্কড়ঝক্কড়। দুই ছাত্র হত্যার পর এই পরিবহনের নামে গাড়ি নামাতে ভয় পাচ্ছেন মালিকরা। র‌্যাব ও পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছেন তিন ড্রাইভার, দুই সহকারী ও এক পরিচালক।

বাসগুলো মিরপুরের বিভিন্ন অলিগলিতে রাখা রয়েছে। ছাত্র আন্দোলন যখন তুঙ্গে, ঠিক ওই মুহূর্তেই জাবালে নূর পরিবহনের বাসগুলো রঙ লাগিয়ে চেহারা বদলানোর কাজে ব্যস্ত ছিলেন মিস্ত্রিরা। রাতারাতি ওই পরিবহনের নাম পরিবর্তন করে রাখা হয়েছে নিউ ভিশন ও আল-মক্কা পরিবহন। সবগুলো গাড়িতে নতুন করে রঙ লাগানো হচ্ছে। আর জাবালে নূর নাম মুছে লেখা হচ্ছে নিউ ভিশন পরিবহন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার (ট্রাফিক) মীর রেজাউল করিম বলেন, ‘জাবালে নূরের কোনো গাড়ি রাস্তায় পেলেই আটক করা হবে। এমন নির্দেশনা ট্রাফিক বিভাগকে দেওয়া আছে।’ ভিন্ন নামে জাবালে নূর রাস্তায় নামানোর প্রস্তুতি চলছে এ বিষয়ে রেজাউল করিম জানান, এমন তথ্য তিনি পাননি। এরপর তাঁকে নিউ ভিশন নামে নাম পাল্টানোর ছবি দেখানো হয়।

এ সময় অতিরিক্ত কমিশনার বলেন, ‘এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ তথ্য। আমি বিষয়টি ট্রাফিক বিভাগকে অবহিত করব।’ এর আগে শুক্রবার রাতে নিউ ভিশনের একটি গাড়ি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের গাড়িকে ধাক্কা দেওয়ায় তাদের বিরুদ্ধেও আইনি ব্যবস্থা নিয়েছে পুলিশ। এরই মধ্যে ধাক্কা দেওয়া বাস, চালক ও হেলপারকে আটক করা হয়েছে। রিমান্ডে নেয়া হয়েছে চালক ও হেলপারকে।

Ads
Ads