যে কারণে পাকিস্তানে শীর্ষ কর্মকর্তাদের প্রথম শ্রেনির বিমানে ভ্রমণ নিষিদ্ধ

  • ২৫-Aug-২০১৮ ১২:০০ পূর্বাহ্ণ
Ads

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান পরিবর্তনের যে বার্তা নিয়ে ক্ষমতায় এসেছেন, শুরুতেই তার আত্মপ্রকাশ ঘটিয়েছেন।

সর্বশেষ খবরটি হল, দেশটির মন্ত্রিসভার সদস্যসহ শীর্ষ কর্মকর্তাদের প্রথম শ্রেনির বিমানে ভ্রমণ নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

কাজেই এখন থেকে দেশটির প্রধানমন্ত্রী, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও জাতীয় পরিষদের সদস্যদের নিজস্ব তহবিল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

এছাড়া সরকার প্রধান, প্রধানবিচারপতি, সিনেট চেয়ারম্যান ও জাতীয় পরিষদের সদস্যদের প্রথম শ্রেনির বিমান ভ্রমণ নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

গত এক সপ্তাহের মধ্যে দেশটির কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার দ্বিতীয় বৈঠকে এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। গত সরকারের আমলে পাঞ্জাব ও খাইবার পাখতুনখাওয়া প্রদেশে বড় বড় পরিবহন প্রকল্পগুলোতে নিরীক্ষা করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয় যে প্রধানমন্ত্রী কেবল দেশের ভেতরে ভ্রমণের জন্য অফিসের বিমান ব্যবহার করতে পারবেন।

তবে কৃচ্ছ্রতা পরিকল্পনার অংশ হিসেবে সাপ্তাহিক ছুটি দুইদিনের বদলে একদিনে নিয়ে আসার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছে মন্ত্রিপরিষদ। তার বদলে সরকারি কর্মকর্তা কর্মচারীদের কর্মঘণ্টা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

দেশটির তথ্যমন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধুরী বলেন, সকাল আটটা থেকে তিনটা পর্যন্ত অফিসের সময় নির্ধারণের পরামর্শ দেয়া হয়েছে। কিন্তু আমরা সকাল ৯টা থেকে বিকাল পাঁচটা পর্যন্ত অফিসের সময় নির্ধারণের কথা ভাবছি। সূত্র: যুগান্তর

/ই

Ads
Ads