রোজায় মাংসের দাম বাড়ালো সিটি কর্পোরেশন

  • ৬-মে-২০১৯ ০৪:০৯ অপরাহ্ন
Ads

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

পবিত্র রমজান উপলক্ষে সব ধরনের মাংসের দাম নির্ধারণ করেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন। এতে গতবারের চেয়ে প্রতিটি মাংসের দাম বাড়ানো হয়েছে।

এবার দেশি গরুর মাংস প্রতি কেজি ৫২৫ টাকা এবং খাসির মাংস প্রতি কেজির দাম ৭৫০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে, যা গত বছরের তুলনায় যথাক্রমে ৪৫ এবং ৩০ টাকা বেশি।

সোমবার (০৬ মে) মাংস ব্যবসায়ীদের সঙ্গে মতবিনিময় শেষে দাম নির্ধারণের ঘোষণা দেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন।

দুপুরে নগর ভবনের ব্যাংক ফ্লোরের সভাকক্ষে এই সভার আয়োজন করে সিটি করপোরেশনের স্বাস্থ্য বিভাগ। সভায় ঢাকা সিটি করপোরেশনের কর্মকর্তা ও মাংস ব্যবসায়ীসহ সুপার শপের প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

সভায় দেশি গরুর মাংসের দাম ৫২৫ টাকা নির্ধারণের পাশাপাশি বোল্ডার বা বিদেশি গরুর মাংসের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ৫০০ টাকা। মহিষ প্রতি কেজির দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ৪৮০ টাকা।

এছাড়া খাসির মাংস ৭৫০ টাকা ও ভেড়ার দাম রাখা হয়েছে ৬৫০ টাকা৷

গত রমজানে দেশি গরুর মাংসের কেজি নির্ধারণ করা হয়েছিল ৪৫০ টাকা। বোল্ডার বা বিদেশি গরুর মাংস ৪২০ টাকা, মহিষের মাংস ৪২০ টাকা এবং ভেড়া ও ছাগলের মাংসের দাম ৬০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছিল।

ঢাকা দক্ষিণের মেয়র বলেন, নির্ধারিত মূল্য খোলা বাজারের পাশাপাশি সুপার শপগুলোর জন্যও কার্যকর হবে।

সাঈদ খোকন বলেন, বিশেষায়িতভাবে ভোক্তাদের মাংস পরিবেশনের ক্ষেত্রে ভোক্তাদের সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে ডিপার্টমেন্টার স্টোরগুলো মূল্য নির্ধারণ করবে। কিন্তু তা যেন ভোক্তাদের জন্য বিড়ম্বনা সৃষ্টি না করে সেদিকেও দৃষ্টি রাখতে হবে।’

যদি কেউ এই দাম অমান্য করে তাহলে তাদের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও হুঁশিয়ার দেন ঢাকা দক্ষিণের মেয়র।

সভায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তাসহ সিটি করপোরেশন কর্মকর্তা ও বিভিন্ন পর্যায়ের মাংস ব্যবসায়ীরা।

Ads
Ads