পাইকগাছায় ৩ শ্রেণীতে মুক্তিযোদ্ধা তালিকা প্রকাশ

শুক্রবার , ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, ৫:৪৯ অপরাহ্ন

:: পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি ::

অবশেষে চুড়ান্ত সময় সীমার মধ্যে খুলনার পাইকগাছায় তিন শ্রেণীতে ২৬৯ জন মুক্তিযোদ্ধার দ্বিধাবিভক্ত খসড়া তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে।

ইউএনও কার্যালয় থেকে ৭ সদস্যোর যাচাই-বাছাই কমিটির সভাপতি ও অন্য সদস্যদের ঐক্যমতে ক, উভয়ের মতপার্থক্যে খ ও যাদের অনুমোদন মেলেনি তাদেরকে গ শ্রেণী দেখিয়ে যৌথ স্বাক্ষরে তালিকা প্রকাশে বঞ্চিতরা হতাশ ও বিক্ষুব্দ হয়ে উঠেছে। সরকারের ঘোষণানুযায়ী এ উপজেলায় গত ২১, ২৮ ও ২৯ জানুয়ারিতে অভিযুক্ত সহ এক তালিকার লাল মুক্তিবার্তা, গেজেটভুক্ত ও অনলাইনে আবেদনকারী দাবিদার ২৬২ মুক্তিযোদ্ধার সাক্ষাৎ কার গ্রহন করা হয়।

অনুসন্ধানে জানা গেছে তালিকায় সংযোজন-বিয়োযোজন নিয়ে সভাপতি ও অন্য সদস্যদের মধ্যে সমন্বয়ের অভাবে চুড়ান্ত তালিকা ঝুঁলে গেলে মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে সন্দেহ অবিশ্বাস থেকে এক পর্যায়ের জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল ও জেলা প্রসাশক বরাবর অভিযোগ করেন ক্ষোদ মুক্তিযোদ্ধারা।

লাল তালিকার ক-১৩, খ-২৪ ও গ-২ শ্রেণী দেখিয়ে দু’জনকে বাদ দেওয়া হয়েছে। অন্যদিকে গেজেটভুক্ত শহীদসহ ক-৩৯, খ-১৩ ও গ-২ শ্রেণীতে এখানেও দু’জন তালিকা থেকে ছিটকে পড়েছে। এদিকে অন লাইনে আবেদন কারী ৩ জন ক, খ-৪০ ও না মনঞ্জুরকৃত-১৩৩ জনের নাম তালিকায় সস্থান পেয়েছে। তালিকা বিলম্বের পিছনে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার শেখ শাহাদাৎ হোসেন বাচ্চু বলেন-কমিটির সভাপতির অসহযোগিতায় ছন্দপতন ঘটে বিলম্ব হয় ।

এ অভিযোগ অস্বীকার করে সরকারী নীতিমালা অনুশরণের কথা জানিয়ে কমিটির সভাপতি অ্যাড. মুজিবুর রহমান বলেন- তারা তালিকায় অমুক্তিযোদ্ধাদের ঢোকানোর জন্য আমাকে ম্যানেজ করার চেষ্ঠা করে এবং আমি দ্বিমত পোষণ করে তালিকায় স্বাক্ষর করার কথা জানান।

 

অনলাইন/কে 

WARNING: Assigned ad is expired! Extend the term or Delete it.
WARNING: Assigned ad is expired! Extend the term or Delete it.